বুধবার | ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

বান্দরবানে জাতীয় ভ্যাট দিবস ও ভ্যাট সপ্তাহ পালন

প্রকাশঃ ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০৪:৩৩:০৪ | আপডেটঃ ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ১০:০৮:৪২
সিএইচটি টুডে ডট কম, বান্দরবান। “ ভ্যাট দিচ্ছে জনগণ, দেশের হচ্ছে উন্নয়ন, ভ্যাট দিয়ে গড়ব দেশ, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ” এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে  বর্নাঢ্য আয়োজনে বান্দরবানে জাতীয় ভ্যাট দিবস ও ভ্যাট সপ্তাহ উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিবার (১৪ ডিসেম্বর) সকালে বান্দরবানের হোটেল হিলভিউর কনফারেন্স কক্ষে  বান্দরবান কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট অফিসের আয়োজনে এই আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এসময় আলোচনা সভায় বান্দরবান কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট এর সহকারী কমিশনার ও বিভাগীয় কর্মকর্তা এস এম সরাফাত হোসেনের সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বান্দরবান পৌরসভার মেয়র মোহাম্মদ ইসলাম বেবী।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে চট্টগ্রাম কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট এর অতিরিক্ত কমিশনার মোঃ কামরুজ্জামান , পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদের সদস্য কাজল কান্তি দাশ, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান একেএম জাহাঙ্গীর, বান্দরবান আবাসিক হোটেল মালিক সমিতির সভাপতি অমল কান্তি দাশসহ বিভিন্ন অফিসের কর্মকর্তা ও ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় বান্দরবান সদর উপজেলা চেয়ারম্যান একেএম জাহাঙ্গীর বলেন,বান্দরবান পার্বত্য জেলা দেশের দূর্গম জেলা হওয়া সত্বেও এখানকার ব্যবসায়ীরা নিয়মিত ভ্যাট প্রদান করছে আর এই ভ্যাটের টাকায় দেশের উন্নয়ন কাজ তরান্বিত হচ্ছে।

এসময় বক্তারা আরো বলেন, দেশের অন্যান্য সমতল এলাকার মত পার্র্বত্য এলাকায় ভ্যাট প্রদান করা অনেক কষ্টকর,কেননা এখনো পার্বত্য জেলায় অনেক বাঁধা বিরাজমান। এসময় তিনি  পার্বত্য জেলায় ভ্যাট নির্ধারণের পরিমান আরো কমানো, ভ্যাট প্রদানের পদ্ধতি ও নিয়ম কানুন আরো জনবান্ধন করার জন্য আবেদন জানান।

এসময় বক্তব্য রাখতে গিয়ে পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদের সদস্য কাজল কান্তি দাশ বলেন, বান্দরবান কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট অফিসের পক্ষ থেকে বান্দরবানের ব্যবসায়ীদের শুধু টার্গেট প্রদান করা হয়।

তিনি আরো বলেন, জোর করে বান্দরবান থেকে ভ্যাটের টাকা আদায় করা সম্ভব নয়,মানুষের আয় বৃদ্ধি পেলে এবং পরিপূর্ণ আয় হলে আমি মনেকরি সবাই ভ্যাট দিবে। আমাদের অফিস থেকে টার্গেট না দিয়ে আরো বেশি পরিমানে ভ্যাট জমা দিতে বান্দরবান কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট অফিসের দায়িত্ব বেশি রয়েছে।

এসময় সমাপনী বক্তব্য দিতে গিয়ে বান্দরবান কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট এর সহকারী কমিশনার ও বিভাগীয় কর্মকর্তা এস এম সরাফাত হোসেন বলেন,জনগণের ভ্যাটের টাকায় জনগণের উন্নয়ন হচ্ছে ,তাই আমাদের সকলকে নিজ নিজ ব্যবসা ও সেবা অনুযায়ী ভ্যাটের টাকা রাজস্বখাতে জমা দিতে হবে।

বান্দরবান কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট এর সহকারী কমিশনার ও বিভাগীয় কর্মকর্তা এস এম সরাফাত হোসেন এসময় আরো বলেন, সরকারী কোষাগারে ভ্যাটের টাকা জমা প্রদানের জন্য এবং জনগণের সেবা করার জন্য প্রয়োজন হলে আমাকে যেকোন সময় ফোন করবেন এবং আমি ফোন পেলেই যেকোন স্থানে গিয়ে যেকোন প্রতিষ্টানে বসে এই ভ্যাটের তথ্য ও সেবা প্রদান করবো।

বান্দরবান |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions