রবিবার | ২৬ মে, ২০১৯

প্রাকৃতিক দুযোর্গ ও পাহাড় ধব্বস মোকাবেলায় জেলা প্রশাসনের সচেতনতামুলক সভা অনুষ্ঠিত

প্রকাশঃ ১৬ মে, ২০১৯ ১০:৫৬:৩৮ | আপডেটঃ ২৬ মে, ২০১৯ ০১:২৫:১০
সিএইচটি টুডে ডট কম, রাঙামাটি। প্রাকৃতিক দুযোর্গ ও পাহাড় ধব্বস মোকাবেলায় পুর্ব প্রস্তুতি হিসেবে রাঙামাটি জেলা প্রশাসন সচেতনতামুলক সভা করেছে। এসময় জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশীদ দূর্যোগ দেখলেই ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা থেকে সকলকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরে যেতে অনুরোধ জানিয়ে বলেছেন,আবহাওয়া সংকেত এবং ভারী বৃষ্টি হলে আপনারা ঝুকিপুর্ণ এলাকায় থাকবেন না। আমরা আর কোন ধরনের প্রানহানি চাই না।
তিনি আজ বৃহস্পতিবার (১৬ মে) বিকেলে রাঙামাটির শিমুলতলী, টিভি সেন্টার এলাকা, রূপনগর সহ বিভিন্ন এলাকায় পাহাড়ের পাদদেশে বসবাসকারী সকল জনগনের সাথে কথা বলেন এবং ঝুকিপুর্ন এলাকা এলাকায় বসবাস না করার আহবান জানান। এসময় জেলা প্রশাসক রাঙামাটি জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা চিহিৃত করে সেখানে সাইনবোর্ড লাগান এবং জনসচেতনতা মুলক সভা করেন।

জেলা প্রশাসকের সাথে এ সময় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক এস,এম শফি কামাল, রাঙামাটি সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জুনায়েদ কবির সোহাগ, নানিয়ারচর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাসুদ পারভেজ তালুকদার, নেজারত ডেপুটি কালেক্টর পল্লব হোম দাশ, রাঙামাটি পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলার রবি মোহন চাকমাসহ স্থানীয়রা উপস্থিত ছিলেন।

পরে জেলা প্রশাসক সাংবাদিকদের বলেন, এলাকার জনগন একটু সচেতন হলে আমরা দূর্যোগ থেকে রক্ষা পাবো। আগামী বর্ষা মৌসুমে ভারী বর্ষণের সম্ভাবনা রয়েছে। ২০১৭ সালের কথা মাথায় রেখে আমাদের সকলকে নিরাপদে থাকতে হবে। নিরাপদ আশ্রয়ে চলে যেতে হবে। ২০১৭ সালের মতো রাঙামাটিতে আর কোন দূর্যোগে আমরা একটি প্রাণও হারাতে চায় না। ২০১৮ সনে পুর্ব প্রস্তুতি থাকায় আমাদের তেমন ক্ষয় ক্ষতি হয়নি।
পরে জেলা প্রশাসক ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা গুলোর প্রতিটি বাড়ীতে বাড়ীতে গিয়ে সচেনতা মুলক লিফলেট বিতরণ করেন, তখন এলাকার লোকজন জেলা প্রশাসককে পুর্নবাসনের দাবি জানান ।

রাঙামাটি |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions