খাগড়াছড়ি শহীদ বেদীতে এমপি কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা ও বাসন্তি চাকমা’র যৌথ শ্রদ্ধা নিবেদন

প্রকাশঃ ২২ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯ ১০:২৪:৩৫ | আপডেটঃ ০৪ জুনe, ২০২০ ০৮:১৯:৫২
সিএইচটি টুডে ডট কম, খাগড়াছড়ি। খাগড়াছড়িতে শহীদ বেদীতে প্রতিমন্ত্রী পদ-মর্যাদার শরণার্থী টাস্কফোর্স চেয়ারম্যান ও সংসদ সদস্য কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা ও সদ্য নির্বাচিত নারী সংসদ সদস্য বাসন্তি চাকমা যৌথভাবে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেছেন। এসময় সমবেত সকল জাতি-ধর্ম-বর্ণ-দল-মত নির্বিশেষে ‘জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু’ শ্লোগানে উচ্ছসিত অভিব্যক্তি প্রকাশ করেন।

প্রথমে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান মুক্তিযোদ্ধাদের পক্ষথেকে ভারপ্রাপ্ত জেলা কমান্ডার ও জেলা প্রশাসক মো: শহিদুল ইসলাম মুক্তিযোদ্ধাদের নিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। এর পর শরণার্থী পুনর্বাসন বিষয়ক টাস্কফোর্স চেয়ারম্যান (প্রতিমন্ত্রী) কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি ও তিন পার্বত্য জেলা থেকে নির্বাচিত সংরক্ষিত আসনের নারী সংসদ সদস্য বাসন্তী চাকমা যৌথভাবে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন।

এরপর সেনাবাহিনীর খাগড়াছড়ি রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল হামিদুল হক, বিশেষায়িত আমর্ড পুলিশ ট্রেনিং সেন্টারের অধিনায়ক এডিশনাল ডিআইজি আরঙ্গজেব মাহবুব, পুলিশ সুপার মো: আহমার উজ্জামান, জেলা আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, সরকারী দপ্তর,খাগড়াছড়ি সাংবাদিক ইউনিয়নসহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের পক্ষথেকে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।

সকাল ৭টায় খাগড়াছড়ি সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ থেকে  প্রভাত ফেরী বের করা হয়। প্রভাতফেরি র‌্যালিটি খাগড়াছড়ি সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ থেকে বের হয়ে শহরের শাপলা চত্তর ঘুরে টাউন হলে গিয়ে শেষ। র‌্যালীতে নেতৃত্ব দেন শরণার্থী বিষয়ক টাক্সফোর্সের চেয়ারম্যান(প্রতিমন্ত্রী) কুজেন্দ্রলাল ত্রিপুরা এমপি ও তিন পার্বত্য জেলার নারী সংসদ সদস্য বাসন্তি চাকমা, পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী, জেলা প্রশাসক মোঃ শহিদুল ইসলাম, পুলিশ সুপার আহমার উজ্জামান ও বিভিন্ন সরকারী-বেসরকারী প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা কর্মচারীসহ বিভিন্ন বিদ্যালয়ের শিক্ষক শিক্ষার্থীরা অংশ গ্রহণ করে।

এদিকে ভোরে খাগড়াছড়ি আর্দশ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক অংপ্রু মারমার নেতৃত্বে বিদ্যালয়ের শহীদ মিনারে শিক্ষক শিক্ষার্থীদের নিয়ে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান। এ সময় প্রধান শিক্ষক অংপ্রু মারমা বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের একুশে ফেব্রুয়ারী ও আন্তজার্তিক মাতৃভাষা দিবস দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরেন। এছাড়া জেলার বিভিন্ন বিদ্যালয়ে দিবসটি উদযাপন করা হয়।

দিবসের অন্যান্য কর্মসূচীর মধ্যে রয়েছে বিকাল ৪ টায় ২১ শের বই মেলার উদ্ধোধন,আলোচনা সভা ও জেলা শিল্পকলা একাডেমির পরিবেশনায় সাংস্কৃতিক সভা।